ক্ষত-বিক্ষত পন্থকে ফিরিয়েছেন মৃত্যুমুখ থেকে, পুরস্কৃত বাস ড্রাইভার সুশীল

জি ২৪ ঘণ্টা ডিজিটাল ব্যুরো: বরাত জোরে বেঁচে গিয়েছেন ঋষভ পন্থ (Rishabh Pant)। টিম ইন্ডিয়ার (Team India) তারকা ক্রিকেটার শুক্রবার (৩০ ডিসেম্বর) দিল্লি থেকে রুরকি আসার পথে তাঁর গাড়ি দুর্ঘটনার কবলে পড়েন। সেইসময় সেখানে সবার আগে দৌড়ে আসেন ড্রাইভার সুশীল কুমার (Sushil Kumar) এবং কন্ডাক্টর পরমজিৎ (Paramjeet)। তাঁরা পন্থকে বাঁচান এবং অ্যাম্বুলেন্স ডেকে হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন। এমন কাজের জন্য দুই কাজের মানুস-কে আগেই ধন্যবাদ জানিয়েছেন ভিভিএস লক্ষ্মণ (VVS Laxman)। এবার এমন মানবিকতার জন্য এই দুই ব্যক্তিকে যোগ্য সম্মানও দেওয়া হল। 

আসলে সুশীল কুমার এবং পরমজিৎকে পানিপথ ডিপো থেকে সম্মানিত করা হয়েছে। পাশাপাশি উত্তরাখণ্ড সরকারের পক্ষ থেকেও ঘোষণা করা হয়েছে যে এই দুই ব্যক্তিকে সম্মানিত করা হবে। সরকারের পক্ষ থেকে ইতিমধ্যেই বলা হয়েছে যে মানবিকতার কথা মাথায় রেখে এই দুই ব্যক্তি যথেষ্ট সাহসিকতার কাজ করেছেন। তাঁদের অবশ্যই সম্মানিত করা দরকার।

পানিপথ ডিপোর জেনারেল ম্যানেজার কুলদীপ ঝাঙ্গড়া এই দুই ব্যক্তিতে সম্মানিত করেছেন। তিনি বললেন, ‘সুশীল এবং পরমজিৎ একজন আহত মানুষকে বাঁচিয়ে খুবই ভালো কাজ করেছে। কারণ পরে তাঁরা জানতে পেরেছিলেন যে আহত ব্যক্তির নাম ঋষভ পন্থ। সেকারণে আমরা এই দুজনের উপরে অত্যন্ত গর্বিত। উত্তরাখণ্ড সরকারও ঘোষণা করে দিয়েছে যে সম্মান জ্ঞাপন করা হবে।’

বাস কন্ডাক্টর পরমজিৎ বললেন, ‘আমাদের দেখা মাত্রই ও বলে আমি ঋষভ পন্থ। আমি সেই সময় বলেছিলাম ‘কোন ঋষভ পন্থ!’ ও তখন বলে আমি ভারতীয় দলের ক্রিকেটার। ওকে এরপর গাড়ির বাইরে বের করে আনলাম, এর ৫-৭ মিনিট পরেই গাড়িতে আগুন ধরে যায়। সঙ্গে সঙ্গে জ্বলে পুড়ে যায় সেই গাড়ি। আর কিছুক্ষণ দেরি হলেই মারাত্মক কিছু ঘটতে পারত।’ 

আরও পড়ুন: Rishabh Pant Accident: ‘গাড়িটা আস্তে চালাবি’, পন্থকে আগেই সাবধান করেছিলেন ধাওয়ান

Read also  IND vs BAN: ৩৫ মাস ধরে রোহিত শর্মার বড় রান নেই

আরও পড়ুন: Rishabh Pant Accident: ভারতীয় ক্রিকেটে বড় ধাক্কা! অস্ট্রেলিয়া সিরিজ-আইপিএলে সম্ভবত নেই আহত পন্থ

এদিকের সুশীলের ছবি দিয়ে টুইটারে লক্ষ্মণ লিখেছেন, ‘হরিয়ানা রোডওয়েজ চালক সুশীল কুমারের প্রতি আমার কৃতজ্ঞতা, যিনি ঋষভ পন্থকে জ্বলন্ত গাড়ি থেকে বের করে নিয়ে যান এবং তাঁকে একটি চাদরে মুড়ে অ্যাম্বুলেন্স ডাকেন। সুশীলবাবু আপনার নিঃস্বার্থ সেবার জন্য আমরা আপনার কাছে ঋণী।’ 

বাংলাদেশ সফরের পর মহেন্দ্র সিংয়ের সঙ্গে দুবাইয়ে ছিলেন ঋষভ। ক্রিসমাস সেখানে কাটিয়ে নতুন বছরে তাঁর মায়ের সঙ্গে দেখা করতে দেশে ফেরেন। ২৯ ডিসেম্বর গভীর রাতে দিল্লি থেকে উত্তরাখণ্ডে নিজের বাড়ির উদ্দেশে রওনা হন পন্থ। মাকে সারপ্রাইজ দেওয়ার ইচ্ছে ছিল। রুরকির কাছে হঠাৎই চোখ লেগে যাওয়ায় গাড়ির নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন। 

পন্থের শরীরের কোনও অংশই পুড়ে যায়নি। শরীরের কোনও হাড় ভাঙেনি তাঁর। পন্থের শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরাও। পন্থের চিকিৎসার জন্য গঠন করা হয়েছে চিকিৎসকদের একটি দল। প্রয়োজনে দিল্লিতে নিয়ে গিয়ে চিকিৎসা করানো হতে পারে এই তরুণ ক্রিকেটারকে। যদিও শোনা যাচ্ছে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজ ছাড়াও আইপিএল-এ মাঠে নামতে পারবেন না পন্থ। এখন কবে তিনি ফের বাইশ গজের যুদ্ধে ফিরতে পারেন সেটাই দেখার। 

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App) 



Source link