Shannen Jones Guinness World Record: পা দিয়েই নিখুঁত তীর ছুঁড়তে দক্ষ অস্ট্রেলিয়ান তরুণী, রেকর্ড ভেঙে নাম গিনেস বুকে

নিখুঁতভাবে তীর ছোঁড়ার কায়দা আয়ত্ত করা বেশ কঠিন। কারণ এর জন্য অনেক প্রচেষ্টা এবং ধৈর্যের প্রয়োজন। তবে এক অস্ট্রেলিয়ান তরুণী তাঁর নিখুঁত তীরন্দাজ দক্ষতা দিয়েই নাম তুললেন গিনেস বুকে। তাঁর ‘এরোবেটিক’ দক্ষতা অবাক করে দিয়েছে বিশ্বকে। শ্যানেন জোনস শুধু তীর ছুঁড়ে ষাঁড়ের চোখ আঘাত করেছেন এমনটা নয়। বরং পা দিয়ে এই পুরো কাজটি করেন।

গিনেস বিশ্ব রেকর্ড অনুযায়ী, শ্যানেন গত আগস্টে অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডে ১৮.২৭ মিটার দূরত্বে একটি তীর ছুঁড়তে তাঁর পা ব্যবহার করেছিলেন। তাই ‘পা ব্যবহার করে সবচেয়ে দূরের তীর নিক্ষেপের’ জন্য গিনেস বুকে নাম ওঠে তাঁর। এর আগে গিনেসে যার নাম ছিল তিনি মাত্র ৬ মিটার দূরে তীর ছোঁড়েন। এবার তাঁকেই ছাড়িয়ে গেলেন শ্যানেন। সেভেন নিউজের প্রতিবেদন অনুয়ায়ী, ২৩ বছর বয়সী জোনস ২০২২ সালের আগস্টে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে একটি ভিডিও জমা দেন। তার ভিত্তিতেই এই রেকর্ড অর্জন।২ জানুয়ারি তাঁকে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের তরফে খবর দেওয়া হয়।

ইনস্টাগ্রামে একটি ভিডিও শেয়ার করার সময় গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের তরফে জানানো হয়, ‘শ্যানেন জোন্স পা ব্যবহার করে ১৮.২১ মিটার (৫৯ ফুট ১১ ইঞ্চি) দূরে তীরটি ছোঁড়েন।’ ভিডিওটিতে দেখা যায়, জোন্স তাঁর পা দিয়ে লক্ষ্যবস্তুতে তীর ছোড়ার আগে হাতের উপর ভর দিয়ে দাঁড়াচ্ছে । এরপর নিজেকে ভারসাম্যে এনেই পা দিয়ে ছোঁড়েন তীরটি। বিশ্ব রেকর্ড জন্য ভিডিয়ো জমা দেওয়ার আগে তিনি ছয় বছরেরও বেশি সময় ধরে পা দিয়ে তীর ছোঁড়া অনুশীলন করেন।

কয়েকদিন আগে, জোন্স বিশ্ব রেকর্ড অর্জন করার পর একটি ভিডিয়ো শেয়ার করেন। সেখানে তাকে বলতে শোনা যায়, ‘আমি আনুষ্ঠানিকভাবে একজন গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ড হোল্ডার!’ গত রাতে আমার আবেদন যাচাই করা হয়েছে। তাই এখন আমি আনুষ্ঠানিকভাবে বলতে পারি যে আমি বিশ্বের সবচেয়ে নির্ভুল পা তীরন্দাজ।’ তিনি আরও বলেন এই জয়ের জন্য তিনি সারা জীবন অনুশীলন করেন।

Read also  Horoscope Today: বেখেয়াল হলে প্রতারকের খপ্পরে, আজ সতর্ক থাকবেন কোন রাশির জাতক?

সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা তাকে অভিনন্দন জানান। একজন ব্যবহারকারী লেখেন, ‘বাহ, এমন একটি কৃতিত্ব অর্জন করতে অবশ্যই অনেক অনুশীলন এবং সংকল্প নিতে হবে!’ আরেকজন ঠাট্টা করে বলেন,‘মনে করুন আপনি মধ্যযুগীয় সময়ে অন্য দিকের যোদ্ধা এবং হঠাৎ যুদ্ধক্ষেত্রে এটি দেখতে পেলেন।’

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

 

 

Source link