মৃত্যুর ১৩ দিন পরেও ঘরেই থাকে আত্মা! কেন জানেন? । garuda puran says the soul stays at home for 13 days after death

জি ২৪ ঘণ্টা ডিজিটাল ব্যুরো: গরুড় পুরাণ জন্ম থেকে মৃত্যু এবং তারপরে আত্মার যাত্রা সম্পর্কে অনেক কিছু বলে। এটি এমন সব গোপন রহস্য উন্মোচন করে, যা সম্পর্কে জানার কৌতূহল অনেকের মনেই থাকে। শুধু তাই নয়, গরুড় পুরাণে মৃত্যু সংক্রান্ত আচার-অনুষ্ঠান সম্পর্কেও অনেক নিয়ম দেওয়া হয়েছে, যা মেনে চললে মৃতের আত্মা শান্তি পায়। অন্যদিকে, পূর্বপুরুষদের আশীর্বাদে পরিবার প্রচুর উন্নতি, সুখ এবং সমৃদ্ধি পায়।

মৃত্যুর পর আত্মা ঘরেই থাকে

গরুড় পুরাণ অনুসারে, মৃত্যুর পরে মানুষের দেহের আত্মা ১৩ দিন তাঁর নিজের ঘরে থাকে। এই কারণেই মৃত্যুর পরে ১৩ দিন ধরে অনেকগুলি আচার অনুষ্ঠান করা হয়। মৃতের আত্মার জন্য প্রতিদিন খাবার বের করা হয়। এর পরে, শ্রাদ্ধের কাজ সম্পন্ন হয় এবং পিন্ডদান করা হয়। আসলে মৃত্যুর পর যমদূতরা আত্মাকে সঙ্গে নিয়ে যমলোকে নিয়ে যায়। যেখানে তার কৃতকর্মের হিসাব করা হয় এবং ২৪ ঘন্টা পরে আত্মা আবার তার ঘরে ফিরে আসে। এর পেছনের কারণ হল পরিবারের প্রতি তার আসক্তি।

আরও পড়ুন: Gangasagar: রাত পোহালেই গঙ্গাসাগর মেলা! জেনে নিন সাগর সম্বন্ধে অবাক-করা কিছু কথা…

এখানে আত্মা স্বজনদের মাঝে ঘুরে বেড়ায়, ডাকতে থাকে। কিন্তু পরিবারের লোকজন তার কণ্ঠ না শুনলে সে অস্থির হয়ে পড়ে। যেহেতু তার শবদেহ দাহ করা হয়েছে। তাই সে তার বৃদ্ধ শরীরেও প্রবেশ করতে পারে না।

পিন্ডদানের পর আত্মা যমলোকে যায়

এই সময় আত্মা এতটাই দুর্বল হয়ে পড়ে যে কোথাও ভ্রমণ করতে পারে না। তারপরে পরিবারের সদস্যরা পিন্ডদান করে, তেরো দিনের পরে প্রয়োজনীয় আচার সম্পাদন করে, যা আত্মাকে শক্তি দেয় এবং সে যমলোকে যাত্রা করে। শুধু তাই নয়, পিন্ডদানের সময় দেওয়া খাবার এক বছর আত্মাকে শক্তি দেয়।

আরও পড়ুন: PPF Account: পিপিএফ-এর গুরুত্বপূর্ণ আপডেট, ৫ বছরের কমে করা যাবেনা এই কাজ…

Read also  Mamta Mohandas suffering from vitiligo: দক্ষিণী তারকা মমতা আক্রান্ত শ্বেতী রোগে, কেন এই রোগ হয়? কীভাবে সারবে

তাই পিন্ডদানকে খুবই গুরুত্বপূর্ণ মনে করা হয়। অন্যদিকে, যাদের জন্য পিন্ডদান করা হয় না তাদের যমদূতরা ১৩ তম দিনে যমলোকের দিকে টেনে নিয়ে যায়। এই কারণে মৃত ব্যক্তির আত্মাকে অনেক কষ্ট করতে হয়। অন্যদিকে যাদের কর্ম খারাপ থাকে তাদের আত্মাও অনেক কষ্ট পায়।

সতর্কীকরণ: এখানে দেওয়া তথ্য সাধারণ বিশ্বাস এবং তথ্যের উপর ভিত্তি করে লেখা। এর বৈজ্ঞানিক ভিত্তি সম্পর্কে জি ২৪ ঘণ্টার কোনও দায় নেই।

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)

 



Source link